ব্যক্তিগত অর্থ-কড়ির বিষয়ে সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ বিষয়গুলো কী ?


প্রশ্নের উত্থাপন আর তার সম্পর্কে অভিজ্ঞজনদের মতামতের জন্য জনপ্রিয় এক সাইট ‘কুয়োরা’। সেখানে একটি প্রশ্ন ছুঁড়ে দেন একজন। প্রশ্নটি ছিলো, ব্যক্তিগত অর্থ-কড়ির বিষয়ে সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ বিষয়গুলো কী যা প্রত্যেকের জানা জরুরি?

এ সম্পর্কে নানা মুনি নানা মত দিয়েছেন। সেখান থেকে সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ ১২টি বিষয় এখানে জেনে নিন।

চাকরির বেতন দিয়ে আপনি কখনো অর্থশালী হবেন না।

অযথাই অর্থ বিনিয়োগ করবেন না। অর্থের বিনিয়োগ করতে হয় সম্পদ রক্ষার্থে, সম্পদ তৈরির জন্য নয়। কাজেই প্রথমে আপনাকে সম্পদ করতে হবে।

অর্থ উপার্জনের জন্য প্রতিদিন নতুন ১০টি করে আইডিয়া বের করুন। এর সঙ্গে ব্যক্তিগত অর্থব্যবস্থার সম্পর্ক নেই বলে মনে হলেও গভীর সম্পর্ক রয়েছে।

ভালো খাবার বা দামি পোশাক না কিনে অর্থ বাঁচানোর চেষ্টা করবেন না। এটি পুরনো ধারণা। সঞ্চয় বাড়াতে হলে উপার্জন বাড়াতে হবে।

কীভাবে কপিরাইট করতে হয় তা শিখুন।

দুজন মানুষ একে অপরকে কীভাবে সাহায্য করতে পারে তা নিয়ে প্রতিদিন ১০টি করে নতুন উপায় বের করার চেষ্টা করুন। এসব উপায় প্রয়োগ করে নেটওয়ার্ক গড়ে তুলুন।

যখন আপনি সম্পদশালী হয়ে উঠবেন, তখন কোনো পরিকল্পনাতেই ২ শতাংশের বেশি সম্পদ বিনিয়োগ করবেন না।

ব্যাপক প্রতিযোগিতাপূর্ণ কোনো ব্যবসা শুরু করবেন না। চেষ্টা করুন মনোপলি কোনো ব্যবসা শুরু করার।

অর্থের সঙ্গে কোনো সম্পর্ক নেই এমন বিষয়ে প্রচুর পড়ুন। এরপর এর সঙ্গে অর্থকে জড়ানোর চেষ্টা করুন।

ব্যক্তিগত আর্থিক ব্যবস্থাপনার সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ একটি বিষয় হতে পারে প্রতিদিন ৮ ঘণ্টা করে ঘুমানো।

আপনাকে যারা ভালোবাসেন এবং আপনি যাদের পছন্দ করেন তাদের মাঝে থাকুন। যারা আপনার অধঃপতন ঘটাবে তাদের থেকে দূরে থাকুন।

আপনার জীবনে যে জিনিসের প্রাচুর্যতা রয়েছে তার জন্য কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করুন। মূলত সবকিছু নিয়ে তৃপ্ত থাকার চেষ্টা করুন। এছাড়া নিজের প্রতি আস্থা রাখতে হবে।

যাই করেন বা যার সঙ্গেই থাকেন না কেনো, সে বিষয়ে আপনার প্রশ্নটি হবে ‘এটা আমার জন্য ভালো হচ্ছে তো?’ আপনার অবচেতন মন সঠিক উত্তরটি দেবে।

সূত্র : বিজনেস ইনসাইডার

0